ঢাকাWednesday , 3 February 2021
  1. অপরাধ-দূনীর্তি
  2. আইন-আদালত
  3. আর্ন্তজাতিক
  4. কৃষি ও অর্থনীতি
  5. খেলাধুলা
  6. চিকিৎসা
  7. জাতীয়
  8. দেশজুড়ে
  9. ধর্ম
  10. বিনোদন
  11. মতামত
  12. রাজনীতি
  13. লাইফস্টাইল
  14. শিক্ষা
  15. সম্পাদকীয়

সদ্য ভূমিষ্ঠ হওয়া কন্যা শিশুর বাড়িতে উপহার সামগ্রী পৌঁছে দিচ্ছে চুয়াডাঙ্গা জেলা পুলিশ

Rasel Munna
February 3, 2021 11:25 am
Link Copied!

এম.এ.আর.নয়নএম.এইচ.সম্রাট ।। “কন্যা সন্তান বোঝা নয়, আশীর্বাদ” এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে কন্যা সন্তান জন্ম নেওয়ার খবর শোনামাত্রই তাদের বাড়িতে উপহার সামগ্রী পৌঁছে দিয়ে প্রশংসায় ভাসছেন চুয়াডাঙ্গা জেলার মানবিক পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম। ব্যতিক্রমী এমন উদ্যোগ গ্রহণ করায় পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলামকে অনন্য উচ্চতায় নিয়ে গেছে জেলাবাসী।

সম্প্রতি চুয়াডাঙ্গা জেলা পুলিশের ফেসবুক পেজ থেকে চুয়াডাঙ্গার যেকোন প্রান্তে কন্যা সন্তান জন্ম নেওয়ার খবর জানানো মাত্রই তাদের বাড়িতে পুলিশ সুপারের উপহার সামগ্রী পৌঁছে যাবে এমন একটি পোস্ট করার পর তা জেলাবাসীর মধ্যে ব্যাপক সাড়া ফেলে। প্রায় প্রতিদিনই পুলিশ সুপার এবং জেলা পুলিশের কন্ট্রোলরুমে ফোন করে কন্যা সন্তান জন্ম নেওয়ার খবর জানাচ্ছেন সদ্যভূমিষ্ঠ হওয়া কন্যা শিশুর পরিবারের লোকজন। খবর পাওয়া মাত্রই পুলিশ সুপারের নির্দেশে সদ্য জন্ম নেওয়া কন্যা শিশুর বাড়িতে উপহার সামগ্রী নিয়ে হাজির হয়ে যাচ্ছেন পুলিশ সদস্যরা। পরিবারের সদস্যদের হাতে কন্যা শিশুর জন্য বিভিন্ন ধরনের উপহার সামগ্রী তুলে দিয়ে শিশুর সুন্দর ভবিষ্যৎ কামনা করে এবং পরিবারের অন্য সদস্যদের খোঁজখবর নিয়ে ফিরে আসছেন পুলিশ সদস্যরা।

পুলিশ সুপারের উপহার সামগ্রী পেয়ে কন্যা শিশুর পরিবারের সদস্যরা অত্যন্ত আনন্দিত হচ্ছেন এবং পুলিশ সুপারসহ সকল পুলিশ সদস্যদের জন্য মনভরে দোয়া করছেন। পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলামের ব্যতিক্রমী এমন উদ্যোগ এর আগে জেলাবাসী আগে কোনদিন দেখেননি বলে জানাচ্ছেন তারা।

এ বিষয়ে পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলাম বলেন, দেশের মোট জনগোষ্ঠির অর্ধেক নারী। এই বিপুল সংখ্যাক নারী পিছিয়ে থাকলে সামগ্রিক উন্নয়ন অসম্ভব। আজ বুধবার (৩রা ফেব্রুয়ারি) দুপুর পর্যন্ত মোট ৩১৭টি কন্যা শিশুর বাড়িতে উপহার সামগ্রী পৌঁছে দেওয়া হয়েছে। কন্যা শিশু জন্ম নেওয়ার খবর শোনামাত্রই তাদের বাড়িতে উপহার সামগ্রী পৌঁছে দেওয়া হবে। এ সময় তিনি চুয়াডাঙ্গার সর্বস্তরের জনসাধারণের কাছে আইন শৃংঙ্খলা রক্ষা, নারীর ক্ষমতায়ন, নারী ও শিশু নির্যাতন প্রতিরোধ এবং লিঙ্গ বৈষম্য দূরীকরণে সহযোগিতা কামনা করেন।

উল্লেখ্য, আদিকাল থেকেই কন্যা সন্তান জন্মগ্রহণ করলে অনেক পরিবারেই অসন্তোষ দেখা দেয়। সৃষ্টি হয় নানা ধরনের কলহ৷ পুলিশ সুপার জাহিদুল ইসলামের এ ধরনের মহতী উদ্যোগ সমাজের ওই সমস্ত পরিবারের জন্য ইতিবাচক বার্তা বয়ে নিয়ে যাবে বলে আশাবাদী চুয়াডাঙ্গা জেলাবাসী।

কন্যা শিশুর পরিবারের সদস্যদের হাতে উপহার সামগ্রী তুলে দিচ্ছে চুয়াডাঙ্গা জেলা পুলিশ।